টাঙ্গাইলে জমির জন্য বাবা-মাকে পিটিয়ে আহত করল ছেলে


০৮:৩৭ পিএম, ২৫ এপ্রিল ২০২১
টাঙ্গাইলে জমির জন্য বাবা-মাকে পিটিয়ে আহত করল ছেলে - Ekotar Kantho

একতার কণ্ঠ ডেস্কঃ টাঙ্গাইল সদর উপজেলার পোড়াবাড়ি ইউনিয়নের বানিয়াবাড়ী এলাকায় ছেলের নামে জমি লিখে না দেয়ায় বাবা-মাকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে।

ছে‌লের এমন অত্যাচা‌রে অতিষ্ঠ হ‌য়ে ছেলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে টাঙ্গাইল সদর ফাঁড়ি পুলিশের কাছে গিয়ে লিখিত অভিযোগ দিলেও কোনো ব্যবস্থা নেয়‌নি পু‌লিশ।

এ ব্যাপারে অসহায় বৃদ্ধা বাবা মোহাম্মদ আলী পল্টু জানান, তার স্ত্রী রুমিছা বেগমের নামে বাড়ির সাড়ে ৯ শতাংশ জমি রয়েছে। সেই জমি ছেলে শুকুর আলী তার নামে লিখে দেয়ার জন্য দীর্ঘদিন ধরে তাদের চাপ প্রয়োগ করে আসছে। প্রতিনিয়তই শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করে।

তিনি জানান, এরই ধারাবাহিকতায় সোমবার (১৯ এপ্রিল) আবারও জায়গা লিখে দিতে বলে ছেলে শুকুর আলী । তার কথায় রাজি না হওয়ায় ছে‌লে, ছে‌লের বউ, না‌তি, ছে‌লের শ্যালকসহ কয়েকজন মিলে মোহাম্মদ আলী ও তার স্ত্রী রুমিছা বেগমকে মারধর ক‌রে।

এ সময় মোহাম্মদ আলীর আরেক ছে‌লে ও না‌তিরা এগি‌য়ে এলে তা‌দের‌ও মারধর করা হয়। পরে স্থানীয়রা উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ ব্যাপারে পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে। কিন্তু কোনো ব্যবস্থা নেয়‌নি পু‌লিশ। এতে আতঙ্কে দিন কাটাতে হচ্ছে তাদের।

মোহাম্মদ আলী পল্টুর আরেক ছে‌লে ফজল হক বলেন, গায়ের জোরে শুকুর বাবা-মা‌সহ সবাইকে লোক ভাড়া ক‌রে মারধর ক‌রে‌ছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য মো. আলী বলেন, বাবা-মা‌কে মারধর করার ঘটনা‌টি ন্যক্কারজনক। ছেলে হয়ে বাবা-মায়ের গায়ে হাত তোলা ঠিক হয়নি। তদন্তসাপেক্ষে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

টাঙ্গাইলের কাগমারি পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মোশারফ হোসেন বলেন, বিষয়টি জানি। তবে শুনেছি তারা সামাজিকভাবে বিষয়টি সমাধান করবেন।


নিউজটি শেয়ার করুন

কপিরাইট © ২০২২ একতার কণ্ঠ এর সকল স্বত্ব সংরক্ষিত। এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি ।